ড. নীনা ফর কংগ্রেস: ফিলাডেলফিয়ায় প্রবাসীদের বৃহত্তর ঐক্যের ডাক

0 52

পেন্সালভেনিয়া, যুক্তরাষ্ট্রঃ ফিলাডেলফিয়ার তারকা রেস্টুরেন্টে অনুষ্ঠিত হল ফেলাডেলফিয়ার আপারডারবিতে বসবাসরত প্রবাসী বাংলাদেশীদের নব গঠিত সংগঠন “বাংলাদেশি আমেরিকান ডেমোক্রেটিক সোসাইটি “ এর আয়োজনে ফিলাডেলফিয়া (পিএ-০১) থেকে কংগ্রেসওম্যান পদপ্রার্থী প্রথম বাংলাদেশী বংশদ্ভুত আমেরিকান নাগরিক ড. নীনা আহমেদের নির্বাচনী প্রচারনা কমিটির দ্বিতীয় সমাবেশ। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ড. নীনার নির্বাচনি পরিচালনার দায়িত্ব প্রাপ্ত বিএডিভির সাবেক প্রেসিডেন্ট এবং ক্মুনিটি এক্টিভিস্ট ড. ইব্রুল হাসান চৌধুরী এবং সভা পরিচালনা করেন আপারডারবি টাওনশিপের প্রথম বাংলাদেশি কাউন্সিলম্যান শেখ সিদ্দীক। সভায় বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট ক্মুনিটি এক্টিভেস্ট এবং স্থানীয় ডেমোক্রেট পার্টির সদস্য আবু রহমান এবং বাংলাদেশ সোসাইটি অব পেন্সিল্ভেনিয়ার সভাপতি ইফতেখার হোসেন ।

সভার শুরুতেই কাউন্সিলম্যান শেখ সিদ্দীক ক্মুনিটির সব নেতাদের বৈঠকে অংশ নেওয়ায় ধন্যবাদ জানান। তিনি বলেন, এখন আবার আমাদের সামনে সময় এসেছে লাল সবুজের পতাকা তলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে এক হয়ে একসাথে কাজ করার। বিগত সময়ে আপনারা যেমন ভাবে আমাকে আপারডারবি থেকে নির্বাচিত করেছেন ঠিক তেমনি আসন্ন মে মাসে প্রাইমারীতে ড. নীনাকে আমাদের নির্বাচিত করতে হবে। আসুন এই লক্ষ্যকে সামনে রেখে আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করে যাই ।

অনুষ্ঠানে সভাপতি ড. ইব্রুল হাসান চৌধুরী বলেন, ড. নীনাকে নির্বাচীত করতে সবাইকে ঐক্যব্ধ হয়ে কাজ করতে হবে। তিনি আমাদেও ভবিষ্যত প্রজন্মকে মুলধারায় সম্পৃক্ত হতে অনুপ্রানীত করবে। আমরা সবাই ঐক্যবদ্ধ হয়ে ড, নীনাকে নির্বাচিত করি। পরে উপস্থিত ক্মুনিটি নেতৃবৃন্দের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। কংগ্রসওম্যান প্রার্থী আরেকটি নির্বাচনী সভায় ব্যস্থ থাকায় তিনি মুঠোফোনের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সাথে সম্প্রক্ত হন এবং সবাইতে ধন্যবাদ জানান। তিনি আমি নির্বাচীত হলে প্রবাসী বাংলাদেশি এবং বাংলাদেশের জন্য কাজ করার জন্য অঙ্গীকার করেন।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ও বক্তব্য রাখেন মিলবর্ণ ব্যুরর কাউন্সিল্ম্যান মুনসুর আলী মিঠু, লেন্সডেল ডেমোক্রেট নেতা মোহাম্মেদ রাজ্জাক। এছাড়াও অনুষ্ঠানে ফিলাডেলফিয়া,আপারডারবি, নর্থইস্ট ফিলাডেলফিয়া , লান্সডেল ,হ্যাটফিল্ড থেকে ক্মুনিটির বিশিষ্ট নেতারা বৈঠকে যোগ দেন ।

Print Friendly, PDF & Email

Leave A Reply