khabor.com, KHABOR.COM, khabor, news, bangladesh, shongbad, খবর, সংবাদ, বাংলাদেশ, বার্তা, বাংলা

উন্মুক্ত ময়দানে পোপের প্রার্থনা সমাবেশের প্রতীক্ষায় ৮০ হাজার ক্যাথলিক

0 33

ঢাকা : খৃষ্টান সম্প্রদায়ের শীর্ষ ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস আগামীকাল সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মুক্ত সমাবেশে সকলের কল্যাণ কামনায় প্রার্থনায় যোগ দেবেন।দেশের খৃষ্টান সম্প্রদায়ের ৮০ হাজার রোমান ক্যাথলিক এই প্রার্থনা সভায় যোগদানের জন্য অধীর অপেক্ষায় রয়েছেন। পোপ ফ্রান্সিস বাংলাদেশ সফরে আজ ঢাকায় পৌঁছেছেন।

সপ্তাহের শুরুতে বাংলাদেশে শীর্ষ ক্যাথলিক কর্মকর্তা কার্ডিনাল প্রেট্রিক দা রোজারিও এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, পোপ ফ্রান্সিসের প্রার্থনা সভায় আমাদের ৮ বিশপের অধীনে এলাকা থেকে প্রায় ৮০ হাজার ক্যাথলিক যোগদানের প্রস্তুতি নিয়েছি। পোপ ফ্রান্সিস এ সভায় বাংলাদেশের সকল জনগণের শান্তি ও সমৃদ্ধি কামনা করে প্রার্থনা করবেন।

তিন দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে আজ বিকেলে বিশ্বের ১ দশমিক ২ বিলিয়ন ক্যাথলিকের নেতা পোপ ফ্রান্সিস হযরত শাহ জালাল আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে পৌঁছালে তাঁকে লাল কার্পেট বিছিয়ে অভ্যর্থনা জানানো হয়।প্রেট্রিক রোজারিও বলেন, বাংলাদেশের শান্তি ও সম্প্রীতি উদযাপন করতে পোপের আগমন খৃষ্টান সম্প্রদায়ের জন্য ব্যাপক আনন্দ, আশা ও গর্বের বিষয়।

তিন দিনের মিয়ানমার সফর শেষ করে আজ বিকেল ৩টা ৫ মিনিটে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের ভিভি আইপি ফ্লাইট থেকে ৮০ বছর বয়সের পোপ ফ্রান্সিস নেমে আসলে ২১ বার তোপধ্বনির মাধ্যমে তাঁকে অভিবাদন জানানো হয়। রাষ্ট্রপতি এম আবদুল হামিদ তাঁকে অভ্যর্থনা জানান।

পোপ তাঁর মিয়ানমার সফরকালে একই ধরনের উন্মুক্ত গণসমাবেশে প্রার্থনায় নেতৃত্ব দেন এবং হাজার হাজার মানুষের সমাবেশে তিনি ক্ষোভ ও প্রতিশোধ পরিহারের আহ্বান জানান।তিনি মিয়ানমারের সকল জনগণের জন্য সুবিচার, মানবাধিকার এবং মর্যাদা নিশ্চিত করার আহ্বান জানান। দেশটির নাগরিক অথবা পৃথক জাতিগত গোষ্ঠীর সদস্য হিসেবে স্বীকৃত নয় এমন জাতিগোষ্ঠী রোহিঙ্গাদের জন্যও তাঁর এই আহবান প্রযোজ্য বলে ব্যাপকভাবে ধারণা করা হয়।

ঢাকার আর্চবিশপ রোজারিও বলেন, দুই পরিচয়ে পোপের এই সফর। তিনি ভ্যাটিকানের রাষ্ট্র প্রধান এবং প্রধান ক্যাথলিক চার্চ ্এবং এর স্পিরিচ্যুয়াল প্রধান হিসেবে এই সফরে এসেছেন।বাংলাদেশে পোপ ফ্রান্সিসের এই সফর ভ্যাটিকানের রাষ্ট্র প্রধান ও প্রধান ধর্মগুরুর দ্বিতীয় সফর। ৩১ বছর আগে ১৯৮৬ সালের ১৯ নভেম্বর ভ্যাটিকানের পোপ জন পল দ্বিতীয় সরকারি সফরে বাংলাদেশে আসেন।

পোপ ফ্রান্সিসের সফর উপলক্ষে বিশেষ করে সোহরাওয়ার্দী উদ্যান ঘিরে ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।
সমাবেশের পরে পোপ ফ্রান্সিস ঢাকার বারিধারায় ভ্যাটিক্যান দূতাবাস পরিদর্শন করবেন। সেখানে তিনি বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে বৈঠক করবেন।এছাড়া পোপ নগরীর আর্চবিশাপ হাউসে বাংলাদেশের বিশপদের সঙ্গে বৈঠক করবেন।

শনিবার পোপ তেজগাঁও মাদার তেরেসা হাউস পরিদর্শন এবং হলি রোজারি চার্চে ধর্মগুরু ধর্মীয় ও পবিত্র নারী ও পুরুষ, সেমিনারিয়ান নবিসদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন।বিকেল ৩টা ২০ মিনিটে নগরীর নটেরড্যাম কলেজে প্রায় ১০ হাজার নবীনদের সামনে ভাষণ দেবেন।হযরত শাহজালাল বিমান বন্দরে আনুষ্ঠানিক বিদায় জানানোর পর বিকের ৫টায় পোপ ঢাকা ত্যাগ করবেন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave A Reply